শফিকুল ইসলামের নি:শর্ত মুক্তির দাবিতে ডিসি ও এসপির নিকট স্মারকলিপি

0

বিজয় বার্তা ২৪ ডট কম

আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নারায়ণগঞ্জ -৪ আসনে পীর সাহেব চরমোনাই মনোনীত ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর সংসদ সদস্য প্রার্থী মুহাম্মদ শফিকুল ইসলামের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার ও নি:শর্ত মুক্তির দাবি জানিয়ে নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক এবং জেলা পুলিশ সুপার বরাবর একটি লিখিত স্বারকলিপি প্রদান করেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ নারায়ণগঞ্জ জেলা ও মহানগর শাখার নেতৃবৃন্দ।

রবিবার (০১জুলাই) সকাল ১১টায় নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাকের কর্যালয়ে জেলা প্রশাসক রাব্বি মিয়ার নিকট ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ নারায়ণগঞ্জ জেলার সভাপতি ও মহানগর শাখার সভাপতি মুফতি মাসুম বিল্লার নেতৃত্বে উক্ত স্বারকলিপি প্রদান করা হয়।

লিখিত স্বারলিপিতে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ নারায়ণগঞ্জ জেলা ও মহানগর শাখার পক্ষ থেকে উল্লেখ করা হয়, আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নারায়ণগঞ্জ -৪ আসনে পীর সাহেব চরমোনাই মনোনীত ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর সংসদ সদস্য প্রার্থী প্রার্থী মুহাম্মদ শফিকুল ইসলামকে গত ২০ জুন রাত ১২টায় ফতুল্লার তার নিজ বাড়ি থেকে ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশ গ্রেফতার করেন এনায়েত নগর (দক্ষিন) এলাকার শিবিরের সেক্রেটারী আখ্যা দিয়ে। যা কিনা একটি মিথ্যা ও স্বরযন্ত্রমূলক মামলা। তিনি দীর্ঘদিন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার জয়েন্ট সেক্রেটারী ও ফতুল্লা থানা শাখার সভাপতির দায়িত্ব পালন করে আছসছেন। গত ২০০৮ সালের জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি হাতপাখা প্রতিক নিয়ে ইসলামী আন্দোলনের পক্ষে ১১হাজার ভোট পেয়েছিলেন। তিনি দীর্ঘ ১২বছর ধরে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর সেক্রটারীর দায়িত্ব পালন করেছিলেন।
এতো কিছুর পরও তিনি কি করে শিবিরের সেক্রেটারী হলেন? সেটা আমাদের বোগম্য নয়। চরমোনাই পীর সাহেব হুজুরের নেতৃত্বে আমরা সুশৃঙ্খল আর নিয়মতান্ত্রিক ভাবে আন্দোলন করে যাচ্ছি। তাছাড়া জামায়াত শিবিরেকে আমরা পছন্দ করি না। তাদের আদর্শগত অনেক সমস্যা থাকার কারনে পীর সাহেব চরমোনাই সর্বদা তাদের বিরুদ্ধে কথা বলেন। তারা মনে করেন তাদের প্রার্থীকে স্বরযন্ত্র মূলক ভাবে শিবিরের সেক্রেটারী বলে গ্রেফতার করা হয়েছে। ইসলামী আন্দোলন শান্তিপ্রিয় আন্দোলনে বিশ্বাসী। তারা কোন বিশৃঙ্খলা বা রাষ্ট্রবিরোধী কোন কার্যকলাপে জরিত নয়। ইসলাম ও মানবতার জন্য ধারাবাহিক ভাবে আমাদের আন্দোলন ও কর্মসূচি চলছে। এমতাবস্থায় আমাদের পিছু টেনে ধরতে একদল স্বার্থান্বেষী মহল হিংসাত্নক ভাবে এহেন কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছে বলে তারা মনে করেন। আমরা আমাদের প্রার্থীর মুক্তির দাবি জানাচ্ছি পাশাপাশি তার বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানাচ্ছি। যদি তাকে মুক্তি দেয়া না হয় তাহলে সকল উদ্ভুত পরিস্থিতির দায়ভার প্রশাসনকেই নিতে হবে।
লিখিত স্বারকলিপি প্রদানকালে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ নারায়ণগঞ্জ জেলা ও মহানগর শাখার একাধিক নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। পরে নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার বরাবরে একটি স্বারলিপি প্রদান করেন তারা।

Leave A Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.