বঙ্গবন্ধুর জন্যই বাংলাদেশ স্বাধীনতা লাভ করেছে-আনোয়ার

0

বিজয় বার্তা ২৪ ডট কম

নারায়ণগঞ্জ মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আনোয়ার হোসেন বলেছেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃতে¦ এদেশের লাখো বাঙ্গালী স্বাধীনতা যুদ্ধে ঝাপিয়ে পরেছিল। তার জন্যই বাংলাদেশ স্বাধীনতা লাভ করেছে। তার অবদানের কথা আমাদেও ভুললে চলবে না। তার স¥রণে মুজিব নগর পালন করা হয়। তিনি সব সময় স্বপ্ন দেখতেন সোনার বাংলা গড়ার।
মঙ্গলবার ( ১৭ এপ্রিল ) বিকেলে শহরের দুই নং রেল গেইটস্থ আওয়মীলীগের কার্যালয়ে মহানগর আওয়ামীলীগের আয়োজনে ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
তিনি আরো বলেন, বঙ্গবন্ধুকে সহ পরিবারে হত্যা করে কিছু অমানুষ স্বপ্ন দেখেছিল এদেশকে ধ্বংস করারা। কিন্তু তাদের সেই আশা কখনো পূরন হয়নি এবং ভবিষ্যতেও হবেও না। বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও স্বপ্ন দেখেন সোনার বাংলা গড়ার এবং তিনি তা বাস্তবায়ন করে চলেছেন। ইতিমধ্যে তিনি বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়নের মধ্য দিয়ে এদেশকে বিশে^র কাছে মাথা উঁচু করে দাড় করিয়েছেন।
তিনি আরো বলেন, শেখ হাসিনার নেতৃতে¦ আওয়ামীলীগ আজ ঐক্যবদ্ধ। তার নেতৃত্বেই আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা দেশের উন্নয়নে কাজ কওে যাচ্ছে। তিনি বাঁচলে আমরা বাঁচবো। তাই আগামী নির্বাচনে নৌকাকে বিজয়ী করতে দলের সকল নেতাকর্মীকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করতে হবে।
তিনি আরো বলেন, প্রধানমন্ত্রী যেটা করেন সেটা করেন। বর্তমানে তার প্রমান আপনারা পেয়েছেন। পদ্ধাসেতু বিদেশের সহযোগীতা ছাড়া এদেশের টাকায় নির্মাণ হবে এখন তা বাস্তবায়ন হচ্ছে।
তিনি আরো বলেন, আমাদের আওয়ামীলীগের ভিতর কিছু নেতা আছে যারা উপরে উপরে নৌকা বলে চিল্লায় আর ভিতরে লাঙ্গল লাঙ্গল বলে চিল্লায়ল। ঘরের ভিতর আমরা বাইট্টা ইন্দুর রাখবো না। তাদের চিহ্নিত করে দল থেকে বহিস্কার করতে হবে। আমরা নারায়ণগঞ্জে-৫ টি আসনে নৌকা চাই। আর এই ৫ টি আসনে নেতাকর্মীরা ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করে নৌকার বিজয় শেখ হাসিনাকে উপহার দিবো।
নারায়ণগঞ্জ মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেনের সভাপতিত্বে মহানগর আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এড. খোকন সাহার সঞ্চলনায় এ সময় উপস্থিত ছিলেন, মহানগর আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি রোকনউদ্দিন আহমেদ, জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক মোঃ জাহাঙ্গীর আলম, মহানগরের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জিএম আরমান, সাংগঠনিক সম্পাদক এড. মাহমুদা মালা, স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক আতিকুজ্জামান সোহেল, দপ্তর সম্পাদক বিদ্যুৎ কুমার সাহা, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক গাজী আব্দুল রশিদ, জেলা শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক মাইনুদ্দিন আহম্মেদ বাবুল, সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ সবুজ শিকদার, জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক এড. হাবিব আল মোজাহিদ পলু, মহানগর যুব মহিলা লীগের আহ্বায়ক নুর নাহার সন্ধ্যা, যুগ্ম আহ্বায়ক শারমিন আক্তার ডলি সহ অনেকেই ।

Leave A Reply