আড়াইহাজারে সাঈদ হত্যা মামলার আসামী হানিফার আদালতে স্বীকারোক্তী

0

বিজয় বার্তা ২৪ ডট কম

নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে মুদি দোকানদার আবু সাঈদ খান (৬০) হত্যা মামলায় গ্রেফতারকৃত প্রধান আসামী আবু হানিফা আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমুলক জবানবন্দি প্রদান করেছেন। রোববার বিকেলে নারায়ণগঞ্জ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আফতাবুজ্জামানের আদালতে এ জবানবন্দি দেন গ্রেফতারকৃত হানিফা। সে উপজেলার দুপ্তারা ইউনিয়নের গিরদা গ্রামের আঃ আলিমের ছেলে। এর আগে গত শনিবার বিকেলে একই আদালতে অপর আসামী শামীম স্বীকারোক্তীমূলক জবানবন্দি প্রদান করে।
প্রধান আসামী হানিফার দেয়া জবানবন্দির বরাত দিয়ে আড়াইহাজার থানার ওসি এম এ হক জানান, গিরদা গ্রামের বাড়ির পাশে মুদি দোকান চালাত আবু সাঈদ খান এবং দোকানেই রাত্রিযাপন করতো। শামীম, উজ্জ্বল ও হানিফাসহ কয়েক বন্ধু মিলে বন্ধুরা তার মুদি দোকান থেকে দামী সিগারেটসহ বিভিন্ন মামলামাল নিয়ে টাকা প্রদান করতো না। এনিয়ে আবু সাঈদের সাথে তাদের বিভিন্ন সময় বাকবিতন্ডা ঘটে। এছাড়া তারা প্রায় রাতেই মুদি দোকানের পাশে বসে গাঁজা সেবন করায় আবু সাঈদ তার প্রতিবাদ করে এবং গ্রাম্য মাতব্বরদের কাছে নালিশ করে। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে আবু হানিফা মুদি দোকানদার আবু সাঈদকে দুনিয়া থেকে সরিয়ে দেয়ার পরিকল্পনা করে। তার পরিকল্পনায় বাস্তবায়নের যোগ দেয় উজ্জ্বল, শামীম ও তার আরেক বন্ধু। পরিকল্পনা অনুযায়ী সোমবার রাতে আবু সাঈদ স্থানীয় এক ওযাজ মাহফিল থেকে দোকানে ফেরার পথে হানিফাসহ চার বন্ধু মিলে তার গতিরোধ করে এবং এক পর্যায়ে শ্বাসরুদ্ধ করে তার মৃত্যু নিশ্চিত করে দুপ্তারা সেন্ট্রাল করোনেশন উচ্চ বিদ্যালয়ের পিছনের ডোবায় ফেলে চলে যায়। পরদিন স্থানীয়রা ডোবায় আবু সাঈদের লাশ দেখে পুলিশকে খবর দেয় এবং ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে নারায়ণগঞ্জের মর্গে প্রেরণ করে। এ ঘটনায় ওই দিন নিহতের স্ত্রী রাবেয়া বেগম আড়াইহাজার থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করলে শুক্রবার পুলিশ গিরদা গ্রামে অভিযান চালিয়ে শামীম, হানিফা ও উজ্জ্বলকে গ্রেফতার করে।

Leave A Reply