জার্মানিতে চলছে সিবিট মেলা অংশ নিয়েছে বাংলাদেশ

0

cebit

ডিজিটাল অর্থনীতির সংক্ষিপ্ত রূপ ‘ডিকোনমি’ শব্দটিকে মূল বিষয় ধরে জার্মানির হ্যানোভার শহরে শুরু হয়েছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় তথ্যপ্রযুক্তি মেলা সিবিট-২০১৬। গত বছরের মেলাতেও মূল শিরোনাম ছিল ‘ডিকোনমি’। অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ড ও কাঠামোকে ডিজিটাল করে কীভাবে আরও সহজ ও বাস্তবসম্মত করা যেতে পারে, সেসবের উপস্থাপনা দেখা যাবে এবারও। পাঁচ দিনের এ মেলা শুরু হয়েছে গতকাল ১৪ মার্চ। শেষ হবে ১৮ মার্চ।
দ্বিতীয় দিন আজ মঙ্গলবার মেলায় উপস্থিত হবেন জার্মান চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেল এবং আয়োজনের সহযোগী দেশ সুইজারল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট ইয়োহান নিকোলাস স্নাইডার। অনুষ্ঠানের আগে এক বিবৃতিতে আঙ্গেলা ম্যার্কেল বলেছেন, পৃথিবীর অর্থনৈতিক উন্নয়নে তথ্যপ্রযুক্তির ক্রম প্রসার বিশ্বকে আরও এগিয়ে নিয়ে যাবে। ডিকোনমি শিরোনামে যে বিষয়গুলো নিয়ে উদ্যোক্তারা তাঁদের সর্বশেষ প্রযুক্তির প্রদর্শন দেখাচ্ছেন সেগুলো হলো ডিকোনমি শিল্প, ডিকোনমি মোটর ব্যবসা, ডিকোনমি লেনদেন ও ডিকোনমি লজিস্টিক।
১ লাখ ৭৫ হাজার বর্গমিটার জায়গাজুড়ে আয়োজিত ৩১তম সিবিট মেলার ২৮টি হলে অংশ নিচ্ছে ৭০টি দেশের ৩ হাজার ২০০ প্রযুক্তিবিষয়ক প্রতিষ্ঠান। এবারের মেলায় ৩ নম্বর হলে বাংলাদেশ থেকে রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরোর প্যাভিলিয়নে তিনটি প্রতিষ্ঠান এবং ৬ নম্বর হলে হল্যান্ডভিত্তিক সিবিআই থেকে তিনটি ও সুইজারল্যান্ডভিত্তিক আইটিসি থেকে তিনটি—মোট নয়টি তথ্যপ্রযুক্তিবিষয়ক প্রতিষ্ঠান অংশ নিচ্ছে।
এ ছাড়া বিশ্বের অন্যতম এই তথ্য প্রযুক্তিবিষয়ক মেলায় অংশ নিতে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর তথ্যপ্রযুক্তিবিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়, তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদসহ ১৩ জনের একটি প্রতিনিধিদল হ্যানোভারে এসেছেন।

Leave A Reply