‍“অক্ষর”

0

নাজমুল ইসলাম সীমান্ত, বিজয় বার্তা ২৪ ডট কম

বাংলা বর্নমালার “ম” অক্ষরটিকে ধুয়ে মুছে মাতৃকার বুকের উপর রেখে সুধালাম বলো কেন জন্মেছো তুমি?  সে সুধালো, তোমরা তোমাদের জননীকে অহর্নিশ অবাধে  “মা” বলে ডাকার তরে, মা-মাটি-মাতৃভূমির তরে; স্বাধীনতা ছিনিয়ে আনবে বলে। বর্নমালার এমন আরও অনেক অক্ষরের মতো “ব” অক্ষরটিকেও আমার নিদ্রাচ্ছন্ন বাবার বুকের জমিনে রেখে বলেছিলাম, তুমি কেন জন্মালে বলো? সে সুধালো-তুমি তোমার  জন্মভূমিকে বারংবার বাংলাদেশ নামে ভাবতে শিখবে,বলতে শিখবে, জানতে শিখবে! দেশকে ভালোবাসার সুযোগ পাবে! ভালোবাসবে বলে!!!  অন্যান্য অক্ষর গুলো, মুঠো মুঠো মৌনতার সুবাস ছড়িয়ে অনুরাগের স্বরে বলে উঠল আমরাও জন্মেছি তোমাদের জীবনকে ভালোবাসার অনুভূতি দেবার জন্য। সময়কে বহমান রাখার জন্য লেখনিতে, ইতিহাসে, ভাসাতে, কথাতে। অত:পর শ্রদ্ধাবনত আমি-মাটি থেকে আকাশ পর্যন্ত, মানুষ থেকে পাখি পর্যন্ত, খুজেছি রফিক,বরকত, সালামের রক্তাক্ত অন্তর!! খুজেছি বিক্ষুব্ধ, বিদেহী, বিদ্রোহী অগনন হৃদয় প্রান্তর!! খুজেছি দুর্বার বায়ান্ন থেকে দুর্দান্ত একাত্তর।।

Leave A Reply