শেষ হলো ৩ উপজেলার প্রার্থীদের প্রতিক বরাদ্দ

0

বিজয় বার্তা ২৪ ডট কম

উৎসব মুখর পরিবেশে নারায়ণগঞ্জের ৩টি উপজেলার প্রার্থীদের মাঝে প্রতীক বরাদ্দ অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৪ মার্চ) সকাল থেকে নারায়ণগঞ্জ জেলা নির্বাচন কমিশনারের কার্যালয়ে জেলার রূপগঞ্জ ও সোনারগাঁ উপজেলা এবং জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে আড়াইহাজার উপজেলার প্রার্থীদের মাঝে প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হয়। এসময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ জেলা নির্বাচন কমিশনার আতাউর রহমান।

প্রতীক বরাদ্দকালে প্রার্থীদের নির্বাচনী আচরণ বিধি সম্পর্কে অবিহিত করতে গিয়ে তিনি বলেন, নির্বাচনে কোন রকমের অপ্রীতিকর পরিস্থিতি বরদাস্ত করা হবে না। আমরা চাই একটি সুষ্ঠু, সুন্দর ও অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন। ভোটাররা যাতে শান্তিপূর্ণ ভাবে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারে, সেই পরিস্থিতি আপনাদেরকেই তৈরি করে দিতে হবে। নির্বাচনী কার্যক্রম যাতে সুন্দরভাবে সম্পন্ন হয়, সেই দায়িত্ব আমাদের। সকলের সহযোগীতা না থাকলে নির্বাচনী কার্যক্রম কঠিন হয়ে দাড়াবে।

তিনি আরো বলেন, ইতিমধ্যেই আমরা কিছু সংখ্যক প্রার্থীদের বিরুদ্ধে আচরণ বিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ পেয়েছি। তবে এ ব্যপারে কাউকেই লিখিত ভাবে সতর্ক করা হয়নি। এখন থেকে প্রার্থীরা নির্বাচনী আচরণ বিধি মেনে প্রচারণা চালাবেন। কারও বিরুদ্ধে কোনরূপ অভিযোগ পেলে আমরা কঠোর ব্যবস্থা নিতে বাধ্য হবো।

নির্বাচনে প্রার্থীদের এ্যাজেন্ট সম্পর্কে বলতে গিয়ে তিনি বলেন, প্রতিটি প্রার্থীর এ্যাজেন্টদের একটি তালিকা ছবিসহ আমাদের কাছে পাঠাতে হবে। এছাড়াও এ্যাজেন্টদের অবশ্যই নিয়োগপত্র, জাতীয় পরিচয় পত্র, নির্বাচন কমিশনের পরিচয় পত্র বহন করতে হবে। এয়াড়াও এ্যাজেন্ট নির্বাচনে অবশ্যই স্থানীয় ব্যক্তিদের প্রাধান্য দিতে হবে। এ্যাজেন্টদের বয়স সর্বনিন্ম ২৫ বছর হতে হবে।

এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) ও সহকারী নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ সেলিম রেজা, সোনারগাঁ উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা জসীম উদ্দিন এবং রূপগঞ্জ উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মাহাবুবুর রহমান।

সোনারগাঁ উপজেলায় চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মোশারফ হোসেন পেয়েছেন নৌকা প্রতীক এবং তার প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী মাহফুজুর রহমান কালাম পেয়েছেন ঘোড়া প্রতীক। এছাড়াও ভাইস চেয়ারম্যান পদে এম জাহাঙ্গীর হোসেন ভূঁইয়া পেয়েছেন (চশমা), বাবুল হোসেন (টিউবওয়েল), আবু নাঈম বিপ্লব (তালা), মনির হোসেন (উড়োজাহাজ), শাহ্ আলম মিয়া (মাইক) এবং শাহ্ জাহান মিয়া পেয়েছেন (বই) প্রতীক। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে নাসিমা আক্তার পেয়েছেন (পদ্ম ফুল), মাহমুদা আক্তার (হাঁস), হেলেনা আক্তার (কলস) এবং ফরিদা পারভীন শ্যামলী পেয়েছেন (ফুটবল) প্রতীক।

রূপগঞ্জ উপজেলায় চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে ক্ষমতাসীণ দলের মনোনীত প্রার্থী শাহ্ জাহান ভ্ূঁইয়া পেয়েছেন নৌকা প্রতীক, প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী তাবিবুল কাদির তমাল পেয়েছেন আনারস এবং বাংলাদেশ পিপলস পার্টি মনোনীত প্রার্থী এস আলম পেয়েছেন আম প্রতীক। এছাড়াও ভাইস চেয়ারম্যান পদে মোতাহার হোসেন (টিউবওয়েল), মোহাম্মদ স্বপন ভূঁইয়া (টিয়া পাখি), আব্দুল আলিম সরকার (বই), সোহেল আহাম্মদ ভূঁইয়া (চশমা) এবং হাবীবুর রহমান হারেজ পেয়েছেন (তালা) প্রতীক। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে নাসরিন আক্তার চম্পা পেয়েছেন (ফুটবল), শায়লা তাহসিন (কলস), সৈয়দা ফেরদৌসী আলম (হাঁস) এবং হ্যাপী বেগম পেয়েছেন (সেলাই মেশিন) প্রতীক।

আড়াইহাজার উপজেলায় চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মোজাহিদুর রহমান হেলু সরকার (নৌকা) এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী ইকবাল হোসেন মোল্লা পেয়েছেন (আনারস) প্রতীক। এছাড়াও ভাইস চেয়ারম্যান পদে রফিকুল ইসলাম এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ঝর্ণা রহমানের কোন প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী না থাকায় ইতিমধ্যেই তারা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বীতায় বিজয়ী হয়েছেন।

শেয়ার করুন.

Leave A Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.