ইরানে আবিস্কার হল আরেক মেসির

0

বিজয় বার্তা২৪ ডটকমঃ

প্ল্যাস্টিক মেসির পর এবার হাজির নতুন সেনসেশন। লিওনেল মেসির সাথে চেহারার মিলের কারণে আলোড়নটা ইরানের রেজা পারাসতেশকে নিয়ে। প্রকৌশলের ছাত্র পারাসতেশ অবশ্য এ হঠাৎ খ্যাতি উপভোগ করছেন। সুযোগ মিললে মেসির প্রতিনিধি হয়ে তিনি কাজ করতে চান মানবকল্যাণে।

এ যেন একালের পারস্য রূপকথা। তেহরানের রাজপথে আবির্ভাব ঘটেছে কিংবদন্তীর পাড়ার মাঠে বল পায়ে দাড়িয়ে মূর্তিমান লিওনেল মেসি।

রূপকথার রহস্য উন্মোচিত হয়ে যাচ্ছে মেসি মুখ খুললেই বল পায়ে কারিকুরি দেখাতে গেলেই ধরা পড়ে ভোজবাজি। তাতেও হতাশা নেই মেসি ভক্তদের। আসল মেসি না হোক তার রেপ্লিকাতেই মহাখুশি তেহরানবাসী।

এক বাসিন্দা জানান, আমি এ মাঠে প্রতিদিন ফুটবল খেলি। আজ এসে হঠাৎ শুনি মেসি এসেছে। প্রথমে ভেবেছিলাম কেউ মজা করছে। পরে সামনাসামনি দেখলাম এ যে আসলেই লিওনেল মেসি।

অন্য এক বাসিন্দা জানান, এটা অসম্ভব আমার অনুভূতি গুছিয়ে বলা। আমি ওর সাথে ছবি তুলেছি খুব দ্রুতই সেটাকে প্রোফাইল পিকচার করবো।

আনন্দ কম নয় ২৫ বছর বয়সী রেজা পারাসতেশের। প্রকৌশলের এ ছাত্রের আনন্দ আরও বেড়েছে মেসি সতীর্থ জাভি হার্নান্দেজের প্রত্যায়নে।

পারস্যের মেসি রেজা পারাসতেশ বলেন, পথেঘাটে আমাকে দেখে অনেকে ভাবেন মেসি সত্যি ইরানে চলে এসেছে। তাদের বিস্ময়ের মাত্রা বাড়তে থাকে যতক্ষণ না আমি মুখ খুলি। কাতারে একবার আমাকে দেখে মেসির সতীর্থ জাভি টিম বাস থেকে নেমে এসেছিলেন। তিনি ও বলেছেন আমি দেখতে মেসির মতোই।

পারাসতেশের সাথে মেসির সাদৃশ্য দেখে অন্যরকম ভাবনাও এসেছিল ব্যবসায়ীদের মনে। তবে তাতে সায় দেননি পার্সিয়ান মেসি।

রেজা পারাসতেশ আরো বলেন, মেসির সাথে চেহারার সাদৃশ্য কাজে লাগিয়ে ব্যবসায়িক সুবিধা নিতে চাইনা, যদি সম্ভব হয় ইতিবাচকভাবে কাজে লাগাবো। মেসি এ গ্রহের শ্রেষ্ঠ ফুটবলার তার অনেক কাজ কিন্তু সময় কম। ওর প্রতিনিধি হয়ে ভালো কাজে ভূমিকা রাখতে চাই।

Leave A Reply